1. admin@andolonerbazar.com : : admin admin
  2. andolonerbazar@gmail.com : AndolonerBazar :
শিরোনাম :
সন্ত্রাসী কার্যক্রম করে কেউ টিকে থাকতে পারবেন না : কামারুল আরেফিন এমপি  মায়ের ভাষার অধিকার ও রাষ্ট্র্রভাষা প্রতিষ্ঠার সংগ্রাম ছিল বীর বাঙালি জাতির বীরত্বের গৌরবগাঁথা অধ্যায় : ডিসি এহেতেশাম রেজা ২১ কিমি দৌড়ে ভাষা শহীদদের স্মরণ ইবিতে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত মেহেরপুরে অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হচ্ছে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস : কুষ্টিয়ায় সমকাল সুহৃদ সমাবেশের আয়োজনে চিত্রাঙ্কন ও কুইজ প্রতিযোগিতা কুমারখালীতে যথাযথ মর্যাদায় মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত কুষ্টিয়া জেলা সমিতি ইউ.এস.এ ইনকের মহান একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন আলমডাঙ্গায় যথাযথ মর্যাদায় আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবস পালিত কালুখালীতে যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন

রউফের তোপে পাকিস্তানের বড় জয়

  • সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ১৫ এপ্রিল, ২০২৩

 

ক্রীড়া প্রতিবেদক ॥ দ্রুত দুই ওপেনারের বিদায়ের পর সাইম আইয়ুব ও ফখর জামানের ব্যাটে ঘুরে দাঁড়াল পাকিস্তান। আশা জাগাল দুইশ ছাড়ানো সংগ্রহের। তবে চমৎকার হ্যাটট্রিকে তা হতে দিলেন না ম্যাট হেনরি। পরে অবশ্য নিদারুণ ব্যাটিং ব্যর্থতায় নূন্যতম লড়াইও করতে পারল না নিউ জিল্যান্ড। গতিময় পেসার হারিস রউফের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে বড় জয় পেল বাবর আজমের দল। লাহোরে শুক্রবার প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ৮৮ রানে জিতেছে পাকিস্তান। ১৮২ রান তাড়ায় ২৭ বল বাকি থাকতে ৯৪ রানে গুটিয়ে গেছে নিউ জিল্যান্ড। পাঁচ ম্যাচের সিরিজে স্বাগতিকদের এগিয়ে নেওয়ায় সবচেয়ে বড় অবদান রউফের। ১৮ রানে তিনি নেন ৪ উইকেট। টি-টোয়েন্টিতে এর আগে তিনি কেবল একবারই নিয়েছিলেন চার উইকেট। ২০২১ সালে, নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষেই (৪/২২)। গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি পাকিস্তানের। মোহাম্মদ রিজওয়ানকে এলবিডব্লিউ করার পর বাবরকে বোল্ড করে দেন অ্যাডাম মিল্ন। পাল্টা আক্রমণে শুরুর ধাক্কা সামাল দেন ফখর ও আইয়ুব। ৭৯ রানের বিস্ফোরক জুটি ভাঙে আইয়ুবের রান আউটে। ২৮ বলে দুই ছক্কা ও ছয় চারে তিনি করেন ৪৭ রান। একটু পরে সোধির করা চতুর্দশ ওভারের শেষ বলে ফখর ফেরেন ৪৭ রানেই। বাঁহাতি এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানের ৩৪ বলের ইনিংসে চারটি চারের পাশে ছক্কা দুটি।  তাদের ফেরার মাঝে পাকিস্তান হারায় আরও দুটি উইকেট। ত্রয়োদশ ওভারে পরপর দুই বলে হেনরি ফিরিয়ে দেন শাদাব খান ও ইফতিখার আহমেদকে। পরে উনিশতম ওভারের প্রথম বলে শাহিন শাহ আফ্রিদিকে ফিরিয়ে হেনরি পূর্ণ করেন হ্যাটট্রিক। টি-টোয়েন্টিতে নিউ জিল্যান্ডের বোলারদের এটি চতুর্থ হ্যাটট্রিক। দ্বাদশ ওভারে ২ উইকেটে ১০৯ রানের দৃঢ় ভিতের উপর ছিল পাকিস্তান। দ্রুত ওই চার উইকেট হারিয়ে ১৪ ওভার শেষে তাদের স্কোর দাঁড়ায় ১৩১/৬। শেষ দিকে ফাহিম আশরাফ (১৬ বলে ২২) ও রউফের (৫ বলে ১১) ছোট ছোট অবদানে দুইশ রানের কাছে যায় পাকিস্তানের সংগ্রহ। আইপিএলের জন্য প্রথম পছন্দের অনেক খেলোয়াড়কে ছাড়াই সফরে আসা নিউ জিল্যান্ড জয়ের কোনো সম্ভাবনা জাগাতে পারেনি। প্রথম তিন ওভারে টপ অর্ডারের দুই ব্যাটসম্যানকে হারানো নিউ জিল্যান্ডকে টানতে পারেননি কেউ। অনেকটা সময় টিকে থাকা টম ল্যাথামকে এলবিডব্লিউ করে শিকার শুরু করেন রউফ। পরে এক ওভারে জেমস নিশাম ও রাচিন রবীন্দ্রকে ফিরিয়ে সফরকারীদের ম্যাচ থেকে একরকম ছিটকে দেন তিনি। নিউ জিল্যান্ডের অবস্থা হতে পারতো আরও খারাপ। সর্বোচ্চ ৩৪ রান করা মার্ক চাপম্যান জীবন পান মাত্র ২ রানে। আর কেউ ছাড়াতে পারেননি বিশের ঘরও। মাত্র ৮ রানে শেষ ৫ উইকেট হারায় নিউ জিল্যান্ড। শনিবার একই মাঠে হবে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

পাকিস্তান: ১৯.৫ ওভারে ১৮২ (রিজওয়ান ৮, বাবর ৯, ফখর জামান ৪৭, আাইয়ুব ৪৭, শাদাব ৫, ইফতেখার ০, ওয়াসিম ১৬, আশরাফ ২২, আফ্রিদি ১, রউফ ১১, জামান খান ০*; হেনরি ৪-০-৩২-৩, মিল্ন ৪-০-৫১-২, লিস্টার ৩.৫-০-৩০-২, নিশাম ৩-০-১৮-১, সোধি ৪-০-৩৪-১, রবীন্দ্র ১-০-৯-০)

নিউ জিল্যান্ড: ১৫.৩ ওভারে ৯৪ (ল্যাথাম ২০, বাওয়েস ১, ইয়াং ২, মিচেল ১১, চাপম্যান ৩৪, নিশাম ১৫, রবীন্দ্র ২, মিল্ন ৩, সোধি ৩*, হেনরি ০, লিস্টার ০ ; আফ্রিদি ২-০-১১-১, জামান ২-০-৭-১, আশরাফ ২-০-১৭-১, রউফ ৩.৩-০-১৮-৪, ইফতিখার ২-০-১০-০, শাদাব ৩-০-২৯-১, ওয়াসিম ১-০-২-২)

ফল: পাকিস্তান ৮৮ রানে জয়ী

ম্যান অব দা ম্যাচ: হারিস রউফ

Please Share This Post in Your Social Media

আরো খবর
© All rights reserved ©2021  Daily Andoloner Bazar
Site Customized By NewsTech.Com