1. andolonerbazar@gmail.com : AndolonerBazar :
শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ০৮:৫২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছিল মুক্তিযুদ্ধে পরাজয়ের প্রতিশোধ নেয়ার জন্য খোকসায়  ইউপি সদস্য গুলিবিদ্ধ, সাবেক চেয়ারম্যান গ্রেফতার জিয়াউর রহমান মুক্তিযোদ্ধা এটা আমরা মানি না খেজুরতলা পাটিকাবাড়ী হাইস্কুলে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে আলোচনা সভা কুষ্টিয়ায় সামাজিক প্রতিবন্ধী মেয়েদের প্রশিক্ষণ ও পুনর্বাসন কেন্দ্রে এক সাথে দুই নারীর বিবাহ সম্পন্ন এদেশের মাটিতে আর কোন চক্রান্ত হতে দেয়া হবে না শোকাবহ আগস্ট উপলক্ষে শহরের ৮নং ওয়ার্ডে আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত সন্ত্রাস ও জঙ্গীবাদ দমনের দাবিতে ইবি ছাত্রলীগের বিক্ষোভ কুমারখালীতে আ.লীগের একাংশের বিক্ষোভ মিছিল সমাবেশ কুমারখালীতে জটিল রোগীদের মাঝে চেক বিতরণ

রোহিঙ্গাদের ফের ভাসানচরে নেয়া শুরু হবে সেপ্টেম্বরের শেষে

  • সর্বশেষ আপডেট : বৃহস্পতিবার, ১০ জুন, ২০২১
  • ১১৯ মোট ভিউ

ঢাকা অফিস ॥ ফের রোহিঙ্গাদের নোয়াখালীর হাতিয়ার ভাসানচরে স্থানান্তর শুরু হবে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোহসীন। সেপ্টেম্বর মাসের শেষ দিকে তাদের ভাসানচরে নেয়া হবে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তরের বিষয়ে বৈঠক শেষে তিনি এ কথা জানান। সচিব বলেন, কক্সবাজারে থাকা রোহিঙ্গাদের জায়গা সঙ্কট থাকায় তাদের জন্য ভাসানচরে একটি জায়গা নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে আমাদের মূল উদ্দেশ হলো তাদের দেশে মান মানসম্মতভাবে ফেরত দেয়া, সেই লক্ষ্যে কাজ করছে ইউএন। যেহেতু এটা একটা দীর্ঘ প্রসেস, তাই আপাতত এই ব্যবস্থা। তিনি বলেন, যেহেতু রোহিঙ্গারা যেখানে আছেন সেটি পাহাড়ি এলাকা, কিছুদিন আগেও প্রচুর বৃষ্টি হওয়ায় অনেক জায়গায় দেয়াল ধসে গেছে। সে জন্য গত ৬ তারিখ মুখ্য সচিবসহ সভা হয়েছে। সেখানে ১০ জন অ্যাম্বাসেডর উপস্থিত ছিলেন। সেখানে রিপোর্টিং করা হয়েছে ভাসানচরে এই মূহুর্তে আছে ১৮ হাজার ৮৯০ জনের মতো মানুষ। এক লাখ রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে নেয়ার টার্গেট রয়েছে জানিয়ে মো. মোহসীন বলেন, কীভাবে এটি বাস্তবায়ন করা যাবে সেজন্যই কমিটি গঠন করা হয়েছে। তাদের প্রথম মিটিং হয়েছে। সেখানে আমরা একটি টাইমলাইন ঠিক করেছি। ১৭ জুনের মধ্যে একটি পলিসি ডকুমেন্টের ড্রাফট তাদের পক্ষ থেকে দেবেন। এর মধ্যেও আমরা ফরমালি আলাপ-আলোচনা করব। কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় আছে, তবে এমন কোনো বিষয় নয় যা সেটেল করা যাবে না। তারপরও আমাদের আরও ১-২টা মিটিং লাগবে। সেগুলো শেষ করে আশা করছি সেপ্টেম্বরের শেষের দিক থেকে আমরা আবার রোহিঙ্গাদের নেয়া শুরু করব। এভাবেই আমাদের আজকের আলোচনা হয়েছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব বলেন, আমরা অপারেশন করছি একটু ভিন্ন জায়গায়। সেটি কক্সবাজার থেকে জিওগ্রাফিকালি ভিন্ন, সেজন্য কিছু বিষয় আমাদের আছে। সেটি নিয়ে তাদের কিছু জানার আছে, আমাদেরও কিছু পরিষ্কার করার আছে। সেজন্য আমরা কীভাবে অপারেশন চালাব। কীভাবে তাদের সহায়তা করা যায়, তারা কোন কোন প্রেক্ষাপটে আমাদের সহায়তা করত পারবে সেসব বিষয়গুলো রয়েছে। পলিসি ইস্যু হলে আমাদের কার্যক্রমে সমস্যা হবে না। তখন বাকিদের স্থানান্তরের কাজ শুরু করব। ভাসানচরে নানা সুযোগ-সুবিধা রয়েছে উল্লেখ করে সচিব জানান, ভাসানচরে ব্যারাক হয়ে গেছে, আবাস হয়ে গেছে। সেখানে ১২০টা সেল্টার আছে। খাদ্য রাখার জন্য গুদামও তৈরি হয়েছে। যাতায়াতের জন্য চেয়ারম্যান ঘাটে ব্যবস্থা করা হচ্ছে। স্বাস্থ্যের বিষয়টি নিয়েও আলোচনা চলছে। এ ছাড়া সেখানে ২০০-এর বেশি পুলিশ-এপিবিএন কাজ করছে। আনসার ব্যাটেলিয়ন নেয়া হবে। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- ইউএনএইচসিআরের প্রতিনিধি জনস ভ্যান ডার কালাউ, আইএমের মিশন প্রধান গিওর্গি গিগাউরি, ডাব্লিউএফপি কান্ট্রি রিপ্রেজেন্টেটিভ মি. রিচার্ড রেগান।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর
© All rights reserved ©2021  Daily Andoloner Bazar
Theme Customized By Uttoron Host
You cannot copy content of this page